১২ই আগস্ট, ২০২০ ইং, বুধবার

“চীর স্মরণীয় হয়ে থাকবেন প্রিয় নেতা মোহাম্মদ নাসিম”- শেখ তন্ময়।

আপডেট: জুন ১৩, ২০২০

| মেহেদী হাসান রাসেল

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

জাতীয় চারনেতার অন্যতম ক্যাপ্টেন এম মনসুর আলীর সুযোগ্য সন্তান, সাবেক মন্ত্রী, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র, বর্ষীয়ান জননেতা মোহাম্মদ নাসিম এমপি-এর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দু:খ প্রকাশ করেছেন বাগেরহাট-২ আসনের সংসদ সদস্য শেখ তন্ময়। তাঁর স্মৃতির প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন শেখ তন্ময়। তিনি বলেন,”বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের গৌরবোজ্জ্বল ঐতিহাসিক পথচলায় তাঁর ভূমিকা স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে, চীর স্মরণীয় হয়ে থাকবেন প্রিয় নেতা মোহাম্মদ নাসিম।”

আজ শনিবার (১৩ জুন) সকালে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হসপিটালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান জনাব নাসিম। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭২ বছর। তিনি স্ত্রী ও তিন সন্তান রেখে গেছেন। সাবেক মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনে দেশব্যাপি অসংখ্য গুণগ্রাহী তৈরী করেছিলেন। তাঁর মৃত্যুতে দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

সাবেক মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের মৃত্যুতে বাগেরহাট-২ আসনের সাংসদ শেখ তন্ময় আরও বলেন, “জনাব মোহাম্মাদ নাসিম আজীবন জাতির পিতার অকৃত্রিম আদর্শ লালন করেছেন। তার পিতা জাতীয় চার নেতার অন্যতম ক্যাপ্টেন এম মনসুর আলী বঙ্গবন্ধুর আদর্শের বিশ্বস্ত সৈনিক হওয়ার জন্যই কারাগারের অন্ধকার প্রকোষ্ঠে ৭১-এর পরাজিত শক্তির হাতে ১৯৭৫ সালের ৩ নভেম্বর নিহত হয়েছিলেন। জনাব মোহাম্মাদ নাসিম তেমনি বঙ্গবন্ধু তনয়ার পাশে থেকে বিশ্বস্ত সহচর হিসাবে আজীবন কাজ করে গেছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী থাকাকালীন নব্বই পরবর্তী সময়ে বিশেষ করে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের সকল সন্ত্রাসী বাহিনী সম্পূর্ণভাবে নির্মূলের জন্য দক্ষিণ ও পশ্চিমাঞ্চলের মানুষেরা আজীবন শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে এই বর্ষীয়ান নেতাকে। কীর্তিমান এই মানুষের জীবন থেকে আমাদের দেশের প্রতিটি তরুণকে শিক্ষা নিতে হবে যে, কিভাবে জাতির পিতার আদর্শ বুকে ধারণ করে সৎ সাহস, বিশ্বস্ততা ও সাংগঠনিক দক্ষতা নিয়ে জাতির পিতার সংগঠন আওয়ামীলীগের জন্য ও তাঁর স্বপ্নের বাংলাদেশ বির্নিমানের জন্য কাজ করা যায়।
সর্বোপরি এই কীর্তিমান মানুষের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করি। মহান রাব্বুল আলামিন যেন তাকে বেহেশত নসীব করেন। এবং তার পরিবার পরিজন ও লাখো ভক্ত ও শুভানুধ্যায়ী যেন এ শোক সইতে পারেন আল্লাহর কাছে এ দোয়া করি।”

বর্ষীয়ান জননেতা মোহাম্মদ নাসিম জাতীয় সংসদে পঞ্চমবারের মতো সিরাজগঞ্জের মানুষের প্রতিনিধিত্ব করছিলেন। তিনি এর আগে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ছিলেন। তিনি ১৯৯৬ সালেও স্বরাষ্ট্র, গৃহায়ন ও গণপূর্ত এবং ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রনালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এবার মন্ত্রিত্ব না পেলেও দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য হিসেবে থাকার পাশাপাশি ১৪ দলীয় জোটের মুখপাত্রের দায়িত্ব পালন করছিলেন নাসিম। এর আগে মোহাম্মদ নাসিম বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য, যুব সম্পাদক, প্রচার সম্পাদক, সাংগঠনিক সম্পাদকের মতো গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বও পালন করেছেন। আপাদমস্তক এই রাজনীতিবিদের মৃত্যুতে দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে এক অপূরণীয় ক্ষতি হলো।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

সম্পাদক : মোতাহার হোসেন প্রিন্স, প্রকাশক : মেহেদী হাসান রাসেল

ফ্লাটঃ ৪বি, লেভেলঃ ৪, বাড়ীঃ ১৫, রোডঃ ১৪, সেক্টরঃ ১৩, উত্তরা, ঢাকা ১২৩০

ফোন: 01675132946 

E-mail: dailysongjog@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত